চীন সহযোগিতামূলক পদক্ষেপ নিতে ব্যর্থ হওয়ার কারণেই করোনাভাইরাস ব্যবস্থাপনার শুরুর দিকে মহামারিটি বিশ্বব্যাপী দ্রুতগতিতে ছড়িয়ে পড়েছে বলে মন্তব্য করেছেন মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী অ্যান্টনি ব্লিংকেন।

স্থানীয় সময় রোববার এনবিসি নিউজ চ্যানেলকে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী দাবি করেছেন, চীনের ব্যর্থতায় করোনাভাইরাস নিয়ন্ত্রণের বাইরে চলে গেছে।

অ্যান্টনি ব্লিংকেন বলেন, আমার মনে হয়, চীন এটা জানে যে তারা শুরুর পর্যায়ে যা করা দরকার ছিল, সে ব্যাপারে সঠিক পদক্ষেপটি নেয়নি। ওই ব্যর্থতার ফলেই করোনাভাইরাস নিয়ন্ত্রণের বাইরে চলে যায়। তা না হলে আমার ধারণা এতটা বাজে অবস্থায় পড়তে হতো না। তা ছাড়া আন্তর্জাতিক বিশেষজ্ঞ দলকেও ঠিক সময়ে ঘটনাস্থলে যেতে দেওয়া হয়নি এবং তথ্যও দেয়া হয়নি।

ব্লিংকেন আরো বলেন, এই মহামারি চোখে আঙুল দিয়ে দেখিয়ে দিল যে, ভবিষ্যৎ মহামারি ঠেকাতে বা নিয়ন্ত্রণে রাখতে আমাদের শক্তিশালী বৈশ্বিক স্বাস্থ্য নিরাপত্তা ব্যবস্থা লাগবে। এর মানে হচ্ছে, বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থাকে শক্তিশালী করতে হবে। চীনকে এখানে ভূমিকা রাখতে হবে।

তবে যুক্তরাষ্ট্রের এসব মতামতকে অগ্রাহ্য করে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিউএইচও) শুরু থেকেই বলে আসছে, বিশ্বব্যাপী করোনাভাইরাস ছড়িয়ে পড়ার জন্য চীনকে দায়ী করার বক্তব্য অসঙ্গত। যুক্তরাষ্ট্রের সাবেক প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প বহুবার চীনকে দায়ী করে বক্তব্য দিয়েছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *