তিনি ফুটবলের বিশ্বতারকা। কত রকম প্রচারণাতেই না দেখা যায় ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদোকে। বিশ্বজুড়ে ব্র্যান্ড ভেল্যু আছে, তাই কয়েক মিনিটের কাজেই কাড়ি কাড়ি টাকা রোজগার করে ফেলতে পারেন পর্তুগিজ যুবরাজ।

এবার সৌদি আরবও বড় অংকের প্রস্তাব দিয়েছিল রোনালদোকে। কাজ তেমন কিছুই না। সৌদি আরবের পর্যটন বোর্ডের প্রচারণায় সাহায্য করা। যুক্তরাজ্যভিত্তিক গণমাধ্যম ‘টেলিগ্রাফ’-এর রিপোর্ট, রোনালদোকে এই প্রচারণার বিনিময়ে বছরে ছয় মিলিয়ন ইউরো অফার করা হয়েছিল। বাংলাদেশি মুদ্রায় যার পরিমাণ প্রায় ৬২ কোটি টাকা!

কিন্তু এত বড় অংকের প্রস্তাবও নাকচ করে দিয়েছেন সিআরসেভেন। সৌদি আরবের অনুরোধে মন গলেনি জুভেন্টাস তারকার। তবে কি কারণে এমন প্রস্তাব ফিরিয়ে দিলেন, তা বিস্তারিত জানা যায়নি।

নিজেদের নতুন প্রচারণা ক্যাম্পেইন ‘ভিজিট সৌদি’র অংশ হিসেবে সৌদি আরবের পর্যটন বোর্ড দিয়েছিল এই প্রস্তাব। একইরকম প্রস্তাব তারা পাঠিয়েছে আর্জেন্টাইন খুদেরাজ লিওনেল মেসিকেও।

আগামী মাস থেকে প্রচারণা ক্যাম্পেইন শুরু করবে সৌদি আরবের পর্যটন বোর্ড। বিশ্বজুড়ে এই ক্যাম্পেইনকে নজরে আনার লক্ষ্যেই ক্রীড়া জগতের বড় বড় তারকাদের এতে যুক্ত করতে চাইছে আরব দেশটি।

রাজনৈতিক নানা কারণে ইমেজ সংকটে পড়া সৌদি সরকার খেলাধুলার মাধ্যমে সেই সংকট কাটিয়ে ওঠার কৌশল নিয়েছে। ভাবমূর্তি উজ্জ্বল করার অংশ হিসেবেই ২০১৯ সালে বার্সেলোনা, রিয়াল মাদ্রিদ, অ্যাটলেতিকো মাদ্রিদ ও ভ্যালেন্সিয়াকে নিয়ে স্প্যানিশ সুপার কাপ নিজেদের দেশে আয়োজন করেছিল সৌদি আরব।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *