এখন ট্রিপে থাকা অবস্থায় যাত্রীরা জরুরী প্রয়োজনে সরাসরি যোগাযোগ করতে পারবেন উবারের সেফটি টিমের সাথে

ঢাকা, ২২ নভেম্বর, ২০২০: সর্বোচ্চ নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে এবং প্রতিনিয়ত যাত্রীদের যাতায়াত অভিজ্ঞতাকে আরও সুন্দর করতে বাংলাদেশে আজ থেকে উবার একটি সার্বক্ষণিক সেফটি হেল্পলাইন নম্বর চালু করেছে। উবার অ্যাপে সেফটি টুলকিটের এসওএস ৯৯৯ বাটন, যা ব্যবহারকারীদের প্রয়োজনীয় মুহূর্তে সরাসরি আইন প্রয়োগকারী সংস্থার সাথে যুক্ত করে, তার পাশাপাশি এখন থেকে সেফটি হেল্পলাইন নম্বরও যুক্ত হবে।

নতুন সেফটি হেল্পলাইন নম্বরের মাধ্যমে যাত্রার সময় জরুরি কিংবা ছোটখাটো সমস্যা যেমন- চালক বা যাত্রীর কোনো বিষয় নিয়ে মতবিরোধ বা গাড়ির সমস্যায় যাত্রীরা উবারের সেফটি টিমের প্রতিনিধির সাথে সরাসরি কথা বলতে পারবেন। শুধুমাত্র একটি ট্যাপের মাধ্যমেই যাত্রীরা বাংলা বা ইংরেজী যেকোনো ভাষাতে উবারের সেফটি ইনসিডেন্ট রেসপন্স টিমের সাথে যুক্ত হতে পারবেন যেখানে প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত প্রতিনিধিরা সার্বক্ষণিক সেবা দিবেন।

উল্লেখ্য, উবার সেফটি হেল্পলাইন নম্বরটি ন্যাশনাল ইমার্জেন্সি হেল্পলাইন ৯৯৯ এর বিকল্প নয়। তবে এটি যাত্রী ও চালকদের প্রয়োজনীয় মুহূর্তে জরুরি সেবা পৌঁছে দিতে সহায়ক ভূমিকা পালন করবে।

এ বিষয়ে উবারের ভারত ও দক্ষিণ এশিয়ার সাপ্লাই ও ড্রাইভার অপারেশন্স-এর প্রধান, পভন ভাইস বলেন, “আমাদের নতুন সার্বক্ষণিক সেফটি হেল্পলাইন নম্বর যাত্রীদের যেকোনো সময়, দিনে হোক বা রাতে, সেফটি টিমের সাথে যুক্ত হতে সাহায্য করবে। ফলে এখন থেকে উবার ব্যবহার হবে আরও নিরাপদ ও স্বস্তির। এই হেল্পলাইন নম্বরটি ব্যবহারকারীদের ফিডব্যাক-এর ভিত্তিতে চালু করা হয়েছে এবং এই নিরাপত্তা সংযোজনটি উবারের ব্যবহারকারীদের নিরাপদ রাখার বিষয়ে আমাদের প্রতিশ্রুতিকে পুনর্ব্যক্ত করে।”

সেফটি হেল্পলাইন যেভাবে ব্যবহার করবেন: উবার অ্যাপের সেফটি টুলকিটের অংশ হিসেবে এই হেল্পলাইন নম্বরটি যুক্ত করা হয়েছে। সেফটি টুলকিটে যেতে যাত্রীদের অ্যাপের ‘শিল্ড’ আইকনে ট্যাপ করতে হবে।

১ম ধাপ: ট্রিপ চলাকালীন নিরাপত্তা সংক্রান্ত বিষয়ে সাহায্য পেতে যাত্রীকে ‘শিল্ড’ আইকনে ট্যাপ করতে হবে

২য় ধাপ: এরপর সেফটি টুলকিটের মধ্যে থাকা সেফটি হেল্পলাইন আইকনে ট্যাপ করতে হবে

৩য় ধাপ: উবার প্রতিনিধির সাথে কথা বলতে যাত্রীকে হেল্পলাইন আইকনটি সোয়াইপ (এক প্রান্ত থেকে আরেক প্রান্ত পর্যন্ত টাচ) করতে হবে

গত কয়েক মাস যাবত উবার যাত্রী ও চালকদের নিরাপদ রাখতে বিভিন্ন ফিচার ও নীতিমালা প্রণয়ন করেছে। উবার ব্যবহারকারীদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে উবারের প্রযুক্তি ও সেফটি টিম নতুন নতুন সেবা আনতে দিন-রাত কাজ করে যাচ্ছে। এছাড়াও করোনাকালীন পরিস্থিতিতে উবার তাদের চালকদের জন্য প্রি-ট্রিপ মাস্ক ভেরিফিকেশন সেলফি এবং যাত্রা বাতিল করার নতুন নীতিমালার মতো বিভিন্ন রকম নিরাপত্তা ব্যবস্থা চালু করেছে।

উবার সম্পর্কিত তথ্য

সচলতার মাধ্যমে নতুন সম্ভাবনা সৃষ্টি করাই উবারের লক্ষ্য। আপনি কীভাবে বাটনের এক চাপে যাতায়াতের জন্য একটি গাড়ি পেতে পারেন? এ সমস্যার সমাধান খুঁজতে আমাদের শুরুটা হয় ২০১০ সালে। ১৫ বিলিয়নেরও বেশি ট্রিপ সম্পন্ন করার পর, এখন আমরা সেসব সার্ভিস তৈরির প্রচেষ্টায় নিয়োজিত যেগুলো একজন ব্যক্তিকে তার লক্ষ্যে পৌঁছাতে সাহায্য করে। শহরের যাতায়াত ব্যবস্থা, খাদ্য এবং জিনিসপত্র আনা-নেওয়ার পদ্ধতি পরিবর্তনের মাধ্যমে উবার সম্ভাবনার এক নতুন দ্বার উন্মোচন করেছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *