করোনা ভাইরাসের কারণে সাময়িকভাবে পরিকল্পনা পরিবর্তন করতে হচ্ছে বাংলাদেশ টেস্ট দলের নতুন অধিনায়ক মুমিনুল হককে। ইতোমধ্যে পাঁচ সিরিজের আটটি ম্যাচ স্থগিত হলো টাইগারদের। তার মধ্যে সর্বশেষ হিসেবে স্থগিত হয়েছে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে তিন ম্যাচের টেস্ট সফরও। তবে এই দুঃসময়ে মানসিকভাবে শক্ত থাকার প্রতি জোর দিচ্ছেন মুমিনুল।

সিরিজ বাতিল হওয়া প্রসঙ্গে টাইগারদের টেস্ট অধিনায়ক কথা বলেছেন ক্রীড়া ভিত্তিক ওয়েবসাইট ইএসপিএন ক্রিকইনফো’র সঙ্গে। ২৯ বছর বয়সী বাঁ-হাতি এই ব্যাটসম্যান বলেন, ‘অবশ্যই আমি ক্রিকেট মিস করছি, অন্য সবার মতো অবশ্যই তার জন্য খারাপ লাগছে। এ বছরের জন্য আমারও পরিকল্পনা ছিল। কিন্তু আমাদের মনে রাখতে হবে যে, এটা আমাদের নিয়ন্ত্রণে নেই। তাই এই ব্যাপারে আমাদের করার কিছুই নেই।’

তিনি আরও বলেন, ‘আমাদের অনেক টেস্ট স্থগিত হয়েছে। তবে একমাত্র আশার আলো হচ্ছে, যেহেতু এটা টেস্ট চ্যাম্পিয়নসশিপ, আমরা সেই টেস্টগুলো খেলতে পারবো। আমাদের লক্ষ্য ছোট ছোট পদক্ষেপ নিয়ে উন্নতি করা।’

করোনায় আক্রান্ত হযে দিনদিন মৃত্যুর সংখ্যা বাড়ছে বাংলাদেশে। ঝুঁকি এড়াতে আপাতত মাঠে যাওয়াও নিষিদ্ধ মুমিনুলদের জন্য। স্বাভাবিক অবস্থা কবে ফিরবে তাও অনিশ্চিত। তবে সময়টাতে তিনি সতীর্থদের সঙ্গে আলোচনা করছেন পরিস্থিতি নিয়ে। বিশেষ করে জুনিয়র ক্রিকেটারদের উপদেশ দিচ্ছেন মানসিকভাবে শক্ত থাকার জন্য।

এ ব্যাপারে মুমিনুল বলেন, ‘একজন পেশাদার খেলোয়াড় হিসেবে, ব্যাট-বলের বিষয়টা আমাদের রক্তেই আছে সবসময়। যখন ২-৩ মাস বাসায় লকডাউনের মধ্যে আছেন, তাই এ সময়ে গুরুত্বপূর্ণ হচ্ছে মানসিকভাবে নিজেকে শক্ত রাখা। আমি মনে করি, ৫-৬ দিন কাজের মাধ্যমে নিজের ফিটনেস ধরে রাখতে পারবেন। তবে মানসিকভাবে শক্ত থাকাই সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ।’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *